ঢাকা বুধবার, ২৪ জুলাই ২০২৪ 

‘ঝুমুর’ হলে সম্রাটের বাজির ঘোড়া ‘রিভেঞ্জ’

বিনোদন ডেস্ক

প্রকাশিত: ১৮:০২, ১৪ জুন ২০২৪

শেয়ার

‘ঝুমুর’ হলে সম্রাটের বাজির ঘোড়া ‘রিভেঞ্জ’

জয়দেবপুর-গাজীপুরের তিনটি সিনেমা হল ঝুমুর,উল্কা ও বর্ষা। এর মধ্যে সিনেমা প্রযোজকদের প্রথম প্রাধান্য পায় শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত ঝুমুর সিনেমা হল। বহু চেষ্টা করেও এ প্রেক্ষাগৃহে তুফান সিনেমাটি চালাতে ব্যর্থ হয়েছে প্রযোজক। হল মালিক শরফুদ্দিন এলাহী সম্রাট 'রিভেঞ্জ' সিনেমার উপর বাজি ধরেছেন। তার মতে এই সিনেমাতে চমৎকার মৌলিক একটি গল্প দারুণ সব অভিনয় শিল্পী এবং নির্মান শৈলীক দর্শক টানতে সক্ষম হবে।

জানা গেছে ঝুমুরের অপজিশনে গাজীপুর চৌরাস্তা উল্কা ও বর্ষা সিনেমা হল দুটোই ভাঙ্গাচোরা, বৃষ্টি আসলে হাটু পর্যন্ত পানি জমে যায়। এ দুটো সিনেমা হল প্রায় সময় বন্ধ থাকে।

এর মধ্যে বর্ষা সিনেমা হলের অবস্থা জমে থাকা পানিতে বস্তির ঘরের মতন অবস্থা। সিনেমা হল বন্ধ থাকার কারণে ছিনতাই ও হিরোইন খোরদের আস্তানা হয়ে গেছে। সিনেমা হলটির বুকিং করেন মাস্টার মোহাম্মদ শহিদুল্লাহ। হল দুটি ১১ লক্ষ্য টাকায় 'তুফান' বুকিং করেন। সিনেমার প্রযোজকের পক্ষ থেকে নামমাত্র  রেন্টালে অনেক দেন দরবার করা হয়েছিল ঝুমুর সিনেমা হলের জন্য  কিন্তু হল মালিক সম্রাট সরাসরি মানা করে দেন। 

এ ব্যপারে হল মালিক সমিতির নেতা বলেন,  প্রাথমিক অবস্থায় আমিও 'তুফান' নিয়ে আগ্রহী ছিলাম।কিন্তু সেটা নিয়মের মধ্যে। আমি এর বাহিরে যেতে রাজি ছিলাম না। কারণ সিনেমার বিরুদ্ধে চারদিক থেকে সমালোচনা শুরু হয়। তাছাড়া এটা যে ধরনের গল্প তাতে পরিবার নিয়ে দর্শক হলে আসা সম্ভবনা কম। এ গল্পে টিনেজারদের চাহিদা থাকবে বেশি। যে কারণে আমি 'রিভেঞ্জ' সিনেমাটি নিয়েছি। এতে একটি গল্প রয়েছে যা পরিবার সহ দেখার মত। তাই 'তুফান' নিয়ে হাঁকাহাকির বাজারে আমি নিজেকে যুক্ত করতে চাই নাই।

novelonlite28
umchltd